বিশ্বমানের খেলোয়াড় হতে হলে আমাকে চাপ সামলাতে হবে : সাইফউদ্দিন

2

ক্রীড়া প্রতিবেদক: ফাইনাল জয়ের রসদ যেন ওখানেই পেয়ে যায় ফরচুন বরিশাল। কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের ইনিংসের শেষ ওভারে ৩টি ওয়াইড ও একটি নো বল করলেও মাত্র ৭ রান খরচ করেন মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন। সে ওভারে সব মিলিয়ে যে ১০টি বল তিনি করেন, তার সবগুলো ইয়ার্কার নয়তো লো ফুলটস। অথচ তখন কিনা ব্যাটিংয়ে আন্দ্রে রাসেল, জাকের আলীর মতো পরীক্ষিত দুই হার্ডহিটার ব্যাটার।

গতকাল ফাইনাল জয়ের পর কালের কণ্ঠের সঙ্গে আলাপে সেই বিশেষ ওভার নিয়ে সাইফউদ্দিন বলেন, ‘বিশ্বমানের খেলোয়াড় হতে হলে আমাকে প্রবল চাপ সামলাতে হবে। আমি আমার সর্বোচ্চটূকু দেওয়ার চেষ্টা করেছি। শুকরিয়া যে সফল হয়ছি।’

অথচ তার আগে ওভারেও তাণ্ডব চালান রাসেল।

জেমস ফুলারের সেই ওভারে তিন ছক্কা মারেন ক্যারিবীয় ব্যাটার। এমন ধ্বাংসাত্মক রাসেলের সামনে দলের সেরা বোলারকে আনতেও সাহস পান না প্রতিপক্ষ দলের অধিনায়ক। তবে আস্থা হারাননি তামিম ইকবাল।
অধিনায়ককে প্রশংসায় ভাসিয়ে সাইফউদ্দিন বলেন, ‘রাসেল আগের ওভারে যখন ছয়গুলো মারল, এরপর (তামিম) আমাকে সাহস দিয়ে বলেছিলেন, তুই এটা করতে পারবি।
যে কারণে আমার আত্মবিশ্বাস ছিল যে রাসেল আমাকে একটা বাউন্ডারিও মারতে পারবে না।’